ইউটিউব থেকে আয় করার ৫টি উপায় (earn money from Youtube)

বর্তমানে অনলাইন থেকে টাকা ইনকাম করার অন্যতম মাধ্যম হলো YouTube । অনেকেই কিন্তু ইউটিউব থেকে প্রতি মাসে হাজার হাজার টাকা ইনকাম করছে। Google AdSense ছাড়াও আপনার কিন্তু ইউটিউব থেকে বিভিন্ন উপায় টাকা ইনকাম করতে পারবেন । আমরা কিন্তু আগেই জেনেছি

• কিভাবে ইউটিউব চ্যানেল তৈরি করবেন মোবাইলে
•  ইউটিউবে ভিডিও ছাড়ার নিয়ম
•  ইউটিউব থেকে কিভাবে টাকা আয় করা যায়
• Youtube থেকে টাকা তুলব কিভাবে
• ইউটিউবে কত ভিউতে কত টাকা

 
 আজকে আমরা মূলত আলোচনা করব ইউটিউব থেকে আয় করার 5 টি উপায়। 
 
এর জন্য প্রথমে কিন্তু আপনাদেরকে একটি ইউটিউব চ্যানেল তৈরি করতে হবে কিভাবে ইউটিউব চ্যানেল তৈরি করবেন সেটা আমি আগেই আপনাদেরকে বলেছি । আপনার ইউটিউব চ্যানেল টাকে মনিটাইজেশন অন করা করার জন্য এক বছরে 4000 ঘন্টা ওয়াচ টাইম এবং 1000 সাবস্ক্রাইব কমপ্লিট করতে হবে তাহলে কিন্তু আপনি খুব সহজেই আপনার ইউটিউব চ্যানেল মনিটাইজেশন অন করতে পারবেন । তারপর আপনারা গুগল এডসেন্সের মাধ্যমে টাকা ইনকাম করতে পারবেন।
 
ইউটিউব থেকে আয় করার 5 টি উপায়
Earn money from youtube in bengali

১. গুগল এডসেন্স (Google AdSense ) :

ইউটিউব থেকে আয় করার প্রধান মাধ্যম হলো গুগল এডসেন্স। আপনার চ্যানেলে যদি এক বছরে 4000 ঘন্টা ওয়াচ টাইম এবং 1000 সাবস্ক্রাইব পূর্ণ হয়ে যায় তাহলে কিন্তু গুগল এডসেন্সের মাধ্যমে আপনার ইউটিউবের ভিডিওতে অ্যাড দেখিয়ে টাকা ইনকাম করতে পারবেন। 
 
এই গুগল এডসেন্সের মাধ্যমে কিন্তু অনেক ইউটিউবাররা প্রতি মাসে হাজার হাজার টাকা আয় করছে।
 
গুগল এডসেন্সের মাধ্যমে কত টাকা আয় করা সম্ভব: 
 
আপনার ইউটিউবের ভিডিওর যদি views  ভালো  প্রত্যেকটা ভিডিওতে তাহলে কিন্তু ইউটিউব এর ইনকাম ভালো হবে। আপনার ভিডিওতে যদি ভিউজ বেশি হয় তাহলে ওই ভিডিওতে এড শো করবে বেশি সুতরাং , ভিডিওর ভিউজ বললে আপনার ইনকাম বেশি হবে ( তবে সবক্ষেত্রে ভিউজ দেখে ইউটিউব টাকা দেয় না এড এর উপর নির্ভর করে ইউটিউব টাকা দেয় )


 ২. Sponsorship :

 
ইউটিউব থেকে টাকা আয় করার অন্যতম মাধ্যম হলো sponsorship এই স্পন্সরশীপের মাধ্যমে কিন্তু অনেকে প্রচুর টাকা ইনকাম করে। আপনার ইউটিউব এর ভিডিও যদি ভিউজ ভালো হয় তাহলে কিন্তু আপনাদেরকে কোম্পানিরা sponsorship এর জন্য মেইল করবে, হতে পারে যে কোন অ্যাপ প্রমোট করার জন্য বা হতে পারে যেকোন ব্র্যান্ডের প্রমোশন করার জন্য তার বিনিময় কিন্তু কোম্পানি আপনাকে টাকা দিবে।
 
কিন্তু আপনারা ইউটিউব চ্যানেলে sponsorship কিভাবে পাবেন  এটি পাওয়ার জন্য আপনাদেরকে ইউটিউবে যে কোন একটি niche নিয়ে কাজ করতে হবে এবং আপনার ইউটিউব চ্যানেলের যদি ভালো অডিয়েন্স থাকে তাহলে কিন্তু কোম্পানি রা  আপনার সঙ্গে যোগাযোগ করবে স্পনসর্শিপ দেওয়ার জন্য
 

৩. অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং :

আপনার যদি একটি ইউটিউব চ্যানেল থেকে থাকে এবং আপনি যদি একটি  particular niche  নিয়ে কাজ করেন তাহলে কিন্তু আপনি অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং করে প্রচুর টাকা ইনকাম করতে পারবেন। অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং কি অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং থেকে কিভাবে ইনকাম করবেন সেটা আমি আগেই বলেছি। যে কোন কোম্পানির প্রোডাক্ট এর লিংক  যদি আপনার ভিডিও ডেসক্রিপশন বক্সে দেন  এবং সেই লিঙ্ক থেকে যদি কেউ এই প্রোডাক্টটি কিনে তাহলে কোম্পানি আপনাকে কিছু টাকা কমিশন দেবে এটাই হচ্ছে এফিলিয়েট মার্কেটিং।

4. পণ্য বিক্রয় : 

আপনি যদি ইউটিউবে ভালো fanbase তৈরি করতে পারেন তাহলে কিন্তু আপনার নিজের প্রোডাক্ট ইউটিউব এর মাধ্যমে বিক্রয় করে প্রচুর টাকা ইনকাম করতে পারবেন। যেমন টি-শার্ট, চাবির রিং, মোবাইলের কভার , ব্যাগ ইত্যাদি । অনেক ইউটিউবাররা এভাবে প্রচুর টাকা ইনকাম করছে।

5. course সেল : 

আপনার যদি একটি ইউটিউব চ্যানেল থেকে থাকে এবং কোর্স সেলের মাধ্যমে কিন্তু প্রচুর টাকা ইনকাম করতে পারবেন যা অনেক ইউটিউবাররা করে থাকে। ইউটিউব এর মাধ্যমে যেকোনো কোর্স সেল করে ভালো টাকা ইনকাম করতে পারবেন  ।
 
এছাড়া ইউটিউব থেকে ইনকাম করার আরও কতগুলি মাধ্যম আছে যেমন superchat  মূলত গেমিং ইউটিউবাররা এই সুপর চ্যাটের মাধ্যমে কিন্তু লক্ষ লক্ষ টাকা প্রতি মাসে ইনকাম করে।  ইউটিউবে লাইভ স্ট্রিমিং করে গেম খেলছেন দেখবেন যে অনেকেই চ্যাটের মাধ্যমে টাকা ডোনেট করে সুতরাং এইভাবে কিন্তু ইউটিউব থেকে প্রচুর টাকা ইনকাম করা যায়।
 
 
ব্র্যান্ড collaboration বা  ব্র্যান্ড প্রমোশন , অনেক জনপ্রিয় ইউটিউবার দের কে  লক্ষ করবেন যে তারা বিভিন্ন ব্রান্ডের প্রমোশন করছে ভিডিওর মাধ্যমে যেমন জুতো, হেডফোন ইত্যাদি এটাই হচ্ছে ব্রান্ড প্রমোশন এইভাবে কিন্তু ইউটিউব চ্যানেল থেকে তারা প্রচুর টাকা ইনকাম করে । 
ইউটিউব থেকে কত টাকা আয় করা সম্ভব : 
এবার সর্বশেষে আছে যে ইউটিউব থেকে টোটাল কত টাকা ইনকাম করা সম্ভব, ইউটিউব থেকে কত টাকা ইনকাম করা  সম্ভব সেটা ধারণা দেয়া যেতে পারে, আপনার যদি ইউটিউবে ভালো fan base থেকে থাকে , তাহলে এগুলো ফলো করে অন্তত লাখ টাকা ইনকাম করা সম্ভব।
 
 
     আশা করি  আপনারা ইউটিউব থেকে আয় অর্থাৎ কিভাবে ইউটিউব চ্যানেল থেকে টাকা আয় করা যায় এ ব্যাপারটি পুরোপুরি বুঝতে পেরেছেন , আপনাদের কোন কিছু বুঝতে যদি কোনো অসুবিধা হয় তাহলে নিচে আমাকে কমেন্ট করে অবশ্যই জানাতে  পারেন ধন্যবাদ।

Leave a Comment